শিরোনামঃ
Loading...

মুক্ত আইটি এর পক্ষ্য থেকে আপনাদের সবাইকে শুভেচ্ছা । মুক্ত আইটি এর লেখক হতে চাইলে আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন । ইমেইলঃ muktoit46@gmail.com । মোবাইলঃ 01532403693 । স্কাইপিঃ Abdullah49704 । ফেসবুকঃ Contact with Admin by FB

সত্যিকারের অনলাইনে আয় ( Online Income ) Vs বাস্তবতা (Reality)

সত্যিকারের অনলাইনে আয় ( Online Income ) Vs বাস্তবতা  (Reality)

 অনলাইনে আয় ( Online Income ) Vs বাস্তবতা  (Reality)

Hello ,সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো সত্যিকারের অনলাইনে আয় ( Online Income ) Vs বাস্তবতা নিয়ে । আপনাদের জন্য আজকের পোস্টটা লিখার কথা ছিলো অনেক আগেই বাট সময়ই হয়ে উঠে নাহ লিখার । যাইহোক , ফেসবুকে ঢুকলেই দেখি CPA করে ৫০ হাজার আয় , এস ই ও করে ১ লক্ষ্য টাকা আয় করুন , এফিলিয়েট করে ৩ লক্ষ্য টাকা আয় করুন অথবা কথাও দেখা যায় ভিবিন্ন গ্রুফে যে এই লিংকে ক্লিক করে সাইন আপ করলেই আপনি ৫০ ডলার   অনলাইনে আয় ( Online Income ) করতে পারবেন । বাংলাদেশের ভিবিন্ন ব্লগ এ এখন ঢুকলেই দেখা যায় সব টাকা আর টাকা ইস আমি যদি কিছু ধরতে পারতাম 😛😛😛

সত্যিকারের অনলাইনে আয় ( Online Income ) Vs বাস্তবতা  (Reality) 

অনলাইনে আয় ( Online Income bangla Tutorial )


ট্রেনিং সেন্টারঃ

আমি জানি ট্রেনিং সেন্টারের কোনো প্রশিক্ষক যদি এই পোস্টটি দেখে তিনি রাগ করবেন 😝 । ভাই রাগ করলে আমার কি আর করার আমার যে নৈতিক দায়িত্ব সবাইকে আসল কাহিনী খুলে বলার , আসলে অনলাইনে আয় ( Online Income ) মানুষ যতটা সহজ ভাবে অতটা সহজ না বাস্তব জীবনের মতই কষ্টকর এবং কঠোর পরিশ্রম করতে হয় । আপনি একটা চাকরি পাওয়ার জন্য ২০-২১ বছর শিক্ষ্যা প্রতিষ্ঠানে কাটান , তাও চাকরি পাওয়ার গ্যারান্টি নেই কারণ বাংলাদেশে যে হারে প্রতি বছর গ্র্যাজুয়েট বের হচ্ছে সে হারে কিন্তু চাকরি পাচ্ছে নাহ , সরকার দিবে বা কোথায় থেকে 😕

ট্রেনিং সেন্টারে গিয়ে শিখে ১৫ হাজার টাকা খরছ করে শিখে ফেললেন ইউটিউব মার্কেটিং কিন্তু বাস্তব জীব্নে এসে দেখেন ভিউই পাই নাহ , চ্যানেল উপরে উঠতেছেনা ,ইনকাম হয় নাহ আরো কত কি । তারপরে এসইও ট্রেনিং সেন্টারে গেলেই বুঝতে পারবেন কত নিচ্ছে এখানে পাবলক প্লেসে বলার প্রয়োজন রাখেনা , তারপরে আপনি আর কি করলেন অইখান থেকে এসে মারকেট প্লেসে একাউন্ট করলেন কিন্তু বাস্তবে দেখা গেলো আপনি কাজ ও পারছেন না ঠিকমত বা ক্লায়েন্ট এর সাথে কমুনিকেট করতে ও পারছেন না ভাষাগত সমস্যার কারণে । এভাবে তো আছেই ওয়েব ডিজাইন , এফিলিয়েট মার্কেটিং ইত্যাদি

PTC ( Paid to Click )

এই পধ্যতিতে আয় করা যাবে তবে মাসে ১ ডলার 😛 মানুষকে রেফার করলে হয়ত সেটা ৩০ ডলার বড় জোরে হবে । কিন্তু কোনো কোনো সাইট আছে গাদার মত খাটায় কিন্তু পেমেন্ট চাইলে তাদেরকে খুজে পাওয়া যায় নাহ , হয় আপনাকে ব্যান করবে না হয় পেমেন্ট না করে বলে দিবে পেমেন্ট করছে 😓 ।

ভূয়া সাইট ( Scam Site ) :

মাত্র ১০ মিনিটেই ৫০০ টাকা আয় করুন , ১ ক্লিক দিন হয়ে যাবে ১ ডলার দিনে ১ হাজার ক্লিকের উপরে মাসের ক্লিকের সংখ্যা দাড়াবে লাখের উপরে মানে ক্লিক করেই আপনি ৫ লক্ষ্য -১০ লক্ষ্য ডলার মাসেই আয় করতে পারবেন কয়দিন পর পত্রিকায় দেখাবে আপনি বিলগেটস কে ও ছেড়েছেন । বিকেয়ারফুল  এই সব ভূয়া সাইট থেকে থাকুন ১০০০০০০০ হাত দূরে ।

ভূয়া সাইট  চেনার উপায়ঃ


  • তাদের সাথে  Communication করার অবস্থা থাকবে নাহ ।
  • Contact করলে ও তারা রিপ্লায় কখনো না দিবেনাহ ।
  • সাইটের ডিজাইন প্রফেশনাল হবে নাহ
  • তাদের লাভের কোনো সোর্স না থাকলে যেমনঃ আপনি আমাকে দিয়ে কাজ করিয়ে আমাকে ১০ ডলার দিবেন কিন্তু আপনি ১ ডলার ও পাচ্ছেন নাহ , তাহলে আপনি আমাকে কেনো দিবেন । আপনি যদি ২০ ডলার আয় করতেন আমাকে দিয়ে তাহলে হয়ত আপনি আমাকে ১০ ডলার অবশ্যই দিতেন ।
  • আরেকটা উপায় হলো যে সাইট আপনি সে সাইটের নাম লিখে সাথে ভূয়া কথাটা লিখে গুগলে সার্চ করুন , যে পোস্ট গুলো আসবে সে গুলো পড়ূন । বাংলাতে এতো ভালো পোস্ট না আসলে ও ইংরেজিতে সার্চ করুন যেমনঃ Neobux is it scam or legit?  
  • উপরের কোনো কন্ডিশানের সাথে না মিললে , আপনি কম করে আয় করে তুলে ফেলুন , যদি না দেয় তাহলে ও আপনার এত কষ্ট হলো নাহ ! আর কি দরকার ঝুঁকি নেওয়ার আমি এই পোস্টে রিয়েল সোর্স গুলো দেখিয়ে দিবো ।
  • সাইন আপ করলেই ১০০ ডলার এই ধরনের দেখলেই বুঝবেন কাহিনি সেটা , কোনটা 😇
  • এলেক্সা র‍্যাংক অবশ্যই কম থাকবে ট্রাস্টেড সাইট গুলোর ।
http://www.500tkflexiload.wapka.mobi/index.html ( ১০ মিনিটে ৫০০ টাকা  😲) 

তাহলে কোনদিকে যাবো ?

সবাই যদি মা-বোন হয় বিয়া করমু কারে - বাণিতে হিরো আলম ।
কি বল্লেন হিরো আলম ভাই , বুঝলাম না 😣

যাই হোক , অনলাইনে আয় করার সঠিক অনেক উপায় আছে । আপনি যদি চাকরি করে থাকেন তাহলে আমি বলবো চাকরি ছাড়বেন না , কারণ আমি অনেক বড় ভাইকে দেখেছি তারা অনলাইনে কয়েকটা টাকা আয় করে সেটা দেখে চাকরি ও ছেড়ে দেয় পরে বলে ভাই আমি তো ভিখারি হয়ে গেছি 

সময়ঃ

এটি খুবই মূল্যবান একটি জিনিষ এটি আর নতুন করে বলতে হবে নাহ ! অনলাইনে আয় করার ক্ষেত্রে এই ঘটনাটি আরো বেশি সত্য । ভাই অনেক অভাবে আছি , অনেক কষ্টে আছি আমি অনলাইনে আয় করতে চাই , আসলে আমি তাদের ফিলিংস গুলো বুঝতে পারি কিন্তু  আমি তাদেরকে কি বলবো হুঠ করে কিছুই সম্ভব না তাই আপনি কম্পক্ষে ৭-৮ মাস সময় দিয়ে নির্দিষ্ট কোনো কাজ শিখবেন ।

পরিশ্রমঃ

আমি কিছু করতে চাই কোনো পরিশ্রম করতে চাই নাহ ! কিন্তু কোনো পরিশ্রম ছাড়াই আয় করতে চাই   এটা আপনি স্বপ্নেই দেখতে পারেন বাস্তবে নাহ । বাস্তবতাটা অনেক কঠিন হয় আমরা মেনে নিতে পারি অর পারি নাহ । যারা বাস্তবতা মেনে নিতে পারে তারাই কিন্তু সফল । তাই আপনাকে কঠোর পরিশ্রম করতে হবে ! যেমনঃ আমার ১ টানা ২১ ঘন্টা কাজ করার রেকর্ড আছে । সফলতা এমনি এমনি আসে না , It has been gained .

সততা

আপনি যেভাবেই আয় করুন না কেনো আপনার মধ্যে সততা থাকতে হবে , যে কাজের মধ্যে সততা নেই সেই কাজে ধংস্তা অনিবার্য সেটা এক্টু আগে আসুক বা পরে আসুক । আপনি ধরে রাখেন আপনার পতনকে । কিছু সিস্টেম যা অনৈতিক ভাবে অনলাইনে আয় করে যেমনঃ Sex video আপলোড করে , ভূয়া খবর প্রকাশ করে যেমন কোনো নিউজে বল্লো যে প্রথম কালিমাটা পড়লে এত নেকি পাওয়া যাবে , দেখবেন সেখানে কয়জনি ঢুকলো কিন্তু যখন বলা হয় সাকিব খান , আরজিত সিং , সাল্মান খান আর নেই , আসলে ঢুকে দেখেন যে তারা অমুক ছবিতে অভিনয় করে মারা গেছে । তারপরে আরো কিছু বলি মানুষকে ধোঁকা দিয়ে টাকা নেওয়া , যেমন আপনি যদি আমাকে ৫ হাজার টাকা দেন তাহলে আমি আপনাকে পেপাল একাউন্ট খুলে দিবো হ্যা সাময়িকভাবে আপনি লাভবান হবেন । এই গুলো কোনো বৈধ পথ নয় , তাই অনলাইনে আয় ( Online Income ) করতে হলে সততার সাথে কাজ করতে হবে এতে আপনি হাজার কেনো এক সময়ে লাখের উপরে আয় করতে পারবেন ।

সবাই পারছে কিন্তু

আপনি পারছেন না তাই তো , আসলে আপনি যাদেরকে দেখছেন মাস শেষে হাগার হাগার ডলার আয় করছে আসলে তার কাহিনি কি আপনি কেন না । কারণ
  • তারা সমস্যায় পড়লে কাউকে না বলে নিজে সমাধান করার চেষ্টা করেছে 
  • কাজের জন্য রাতের পর রাত জেগেছে সেটা কেউ দেখেনি 
  • হাজার ভুল করেছে শুধু সফলতা পাবার আশায় 
  • তারা খুবই আত্নবিশ্বাসী যে তারা পারবে ।
  • হাল ছেড়ে দেয় নি ,বার বার ট্রাই করেছে
আপনি কি এই গুলো করেছেন ? আপনি যে বলতেছেন তারা পারছে আমি কেনো পারছি নাহ ।

প্রথমে কি করতে হবে?

প্রথমে আপনি অনলাইনে কাজ গুলোর মধ্যে কোনটি শিখতে চান , সেটা আপনাকে ফিক্স করতে হবে । তারপর সেটা আমার ব্লগ পড়ে হোক , অন্য ব্লগ পড়ে হোক বা ইউটিউবে ভিডি ও দেখে হোক শিখে নিবেন । যেমনঃ আপনি ইউটিউবে এস ই ও র ভিডিও দেখতে চান তাহলে লিখুন এস ই ও ভিডিও টিউটোরিয়াল বা SEO Bangla video tutorial  সার্চ করার পরে filter এ ক্লিক করুন এবং play list এ ক্লিক করুন এখানে সকল ভিডিও দেখতে পাবেন । এদের কেউ কেউ কোচিং সেন্টারে যেতে বললেও কান দিবেন না , ভিডিওর কি ইউটিউবে অভাব আছে অনলাইনে আরটিকেলের কি অভাব আছে । আমি আপনাদেরকে এস ই ও দিয়ে বুঝালাম আপনারা যেটা চান সেটা করে অনলাইনে আয় ( Online Income ) করতে পারবেন । আর গোপন ট্রিক্স জানতে সোজা ফেইসবুক ফেইজে লাইক দিয়ে আমাকে এস এম এস করুন আমি বলে দিবো ।

কিভাবে অনলাইনে আয় ( Online Income ) করা যায়?

মারকেটপ্লেসে কাজ করেঃ

হ্যা অনেক মার্কেট প্লেস আছে যেখানে আপনি ক্লায়েন্টের কাজ করে দিয়ে আয় করতে পারেন অথবা আপনি যে কাজ পারেন সে কাজের অফার ক্লায়েন্টদেরকে করতে পারেন এতে তাদের কাজ করে দিয়ে আপনি আয় করতে পারেন এই পধ্যতিতে ১০ হাজার থেকে কেউ কেউ লাখের উপরে আয় করছেন । কয়েকটা মার্কেট প্লেস ঃ Upwork , Peopleperhour , fiverr  ইত্যাদি

এফিলিয়েট মার্কেটিং ঃ

এফিলিয়েট মার্কেটিং হচ্ছে এমন এক পধ্যতি যেখানে আপনি কোনো ব্যাক্তি বা প্রতিষ্ঠানের পণ্য বিক্রি করে দিয়ে কিছু  অংশ কমিশন হিসেবে পাওয়ার প্রক্রিয়া । এই পধ্যতিতে আপনি সব চেয়ে বেশি আয় করতে পারবেন , ধরেন আপনি কোনো কম্পানির ১ লক্ষ্য টাকা দামের মোবাইল অনলাইনে বিক্রি করে দিলেন তাহলে অই কম্পানি আপনাকে একটি সেলের জন্য ১০ - ১৫ হাজার টাকা দিবে আর যদি আপনি ১০০ টা সেল করতেন , হা হা  হা 😂 এই জন্যই আমি বলছি এই প্রক্রিয়ায় সবচেয়ে বেশি আয় করতে পারবেন । কয়েক্টি এফিলিয়েট সাইট যেমনঃ  Clickbank , ebay , amazon , Hostgator ( Hosting affiliation) 

গ্রাফিক্স ডিজাইনের মাধ্যমেঃ

আপনি কি গ্রাফিক্স ডিজাইন ভালো পারেন? তাহলে গ্রাফিক্স ডিজাইন ( Graphics Design ) থেকে আয় করুন ।  ক্যারিয়ার গড়ুন অনলাইনে graphics design এর মাধ্যমে । গ্রাফিক্স ডিজাইনের মাধ্যমে আয়  করার অনেকগুলি ওয়েব সাইট আছে কিন্তু সবচেয়ে ভালো হবে ৯৯ডিজাইন । আপনি আপওয়ার্কে  ও গ্রাফিক্স ডিজাইনের মাধ্যমে আয় করতে পারবেন । কিন্তু পারথক্য আছে সেটা হচ্ছে ৯৯ ডিজাইনে আপনি যেটাকা পাবেন আপ ওয়ার্কে কখনো এত টাকা পাবেন না , বড় বড় কন্টেস্টে জিততে পারলে তো একটা ডিজাইনের জন্যই ২-৩ লক্ষ্য টাকা , জি হ্যা সঠিক বলছি ট্রাস্ট মি ।

ইউটিউবের মাধ্যমে আয়ঃ

আপনি ইউটিউব থেকে ২ ভাবে আয় করতে পারেন ১ হচ্ছে চ্যানেল মনিটাইজ করে আরেক হচ্ছে  আপনার ব্লগ বা এফিলিয়েট প্রোডাক্টের উপর রিভিউ ভিডিও তৈরি করে । মনিটাইজেশন প্রক্রিয়ায় আপনি গুগল এডসেন্সের এড বসালে আপনার ভিডিওতে কেউ ভিউ করলে বা ক্লিক করলে আপনার আয় হবে । তবে usa এর ভিজিটর আনতে  পারলে বেশি লাভ কারণ আপনার আয় তখন ৪ গুণ থেকে ৫০  গুণ ও হতে পারে  । আর আমাজন বা ক্লিক ব্যাংক অথবা হোস্টগেটরের উপরে রিভিঊ ভিডিও তৈরি করে নিচে এফিলিয়েট লিংক দিবেন ঢুকাই  😋 । এই ভাবে আয় করবেন সব কিছু বিস্তারিত লিখবো তাই চোখ রাখুন মুক্ত আইটিতে ।

ইনভেস্ট করে  আয় ঃ

হা অনেকে আছে তেমন পরিশ্রম করেনা কিন্তু আয় করতে চায় । কিন্তু যেখানে সেখানে ইনভেস্ট করে সর্বহারা হবেন না , আমি একটা ট্রাস্টেড সাইট পাইছি এবং সেটি থেকে খুব ভালো আয় ও করছি বলা যায় আপনি ১ হাজার + ডলার আয় করতে পারেন জাস্ট মাথা খাটিয়ে ।

ব্লগিং করে আয়ঃ

ব্লগিং করে আয়টা হচ্ছে অনলাইনে আয় করার সর্বশ্রেষ্ঠ উপায় । আপনি যদি লাইফটাইম আয় করতে চান এবং অনেক বেশি আয় করতে চান তাহলে বলবো ব্লগিং এর বিকল্প নেই , তাই ব্লগ তৈরি করে আজই কাজে নেমে পড়ুন তবে নিজে লিখুন অন্যের লেখা কপি করে সফল কখনই হবেন না । প্রথমে ব্লগ তৈরি করুন তারপর এস ই ও করুন এবং প্রতিদিন পোস্ট করে যান ভিজিটর না আসুক মাস ৬ বা ১ বছর কষ্ট করে প্রত্যেকদিন পোস্ট করুন । দেখবেন ব্লগ দাড়িয়ে গেলে আপনাকে আর কষ্ট করতে হবে নাহ , তবে হা পোস্ট টা করতে হবে না হয় ভিজিটর ড্রপ দেওয়া শুরু করবে । ব্লগে বিজ্ঞাপন বসিয়ে , এফিলিয়েট প্রোডাক্ট বসিয়ে অনেকভাবে ব্লগ থেকে আয় করা যায় । জাস্ট মাথাটাকে কাজে লাগালে হয় ।

সমস্যায় পড়লে কি করবেন?

আপনাদের অনেকেরই অভ্যাস মানুষকে হুদাই বিরক্ত করা ব্লগারদের এত বিরক্ত করা ঠিক না , তাদের ও কিন্তু একটা পারসোনাল লাইফ আছে । আপনাদের সেটা বোঝা উছিত আপনি ব্যাথ না হলে সফল হতে পারবেন না , তাই আপনাকে ব্যর্থ হইতে হবে তারপরে সফলতা পাবেন । কোনো বিষয় না বুঝলে গুগল সার্চ করুন বাংলা ও ইংরেজিতে । সমাধান না হলে ইউটিউবে অই টপিকের ভিডিও দেখেন । এর পর ও যদি সমাধান না হয় আমাকে বলতে পারেন ।

ইংরেজি এর প্রতিবন্ধকতা দূরিকরণঃ

জি হ্যা আপনাদেরকে উপরে অনেক গুলো রাস্তা দেখিয়েছি কিন্তু এখানে একটা বাধা আছে অবস্টেকল আছে সেটা হচ্ছে ইংরেজি অনেকে ইংরেজিতে বলতে পারেন বা কমুনিকেট করতে পারেনা , তাদের ক্ষেত্রে আমার সাজেশন হচ্ছে আপনারা এই ওয়েব সাইটটি প্রত্যেকদিন ১ ঘন্টা করে পড়ুন , ভিবিন্ন ইংলিশ মুভি বা নিউজ দেখুন , নিউজপেপার পড়ুন , বাই -ব্রাদারের সাথে ও ফেমিলির সাথে ইংরেজি বলার চেষ্টা করুন । "Practice makes a man perfect"

*** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***


খুবই কষ্ট লাগে তখনই যখন দেখি কিছু আবালরা ( চোর ) আমার অনুমতি না নিয়ে অথবা মুক্ত আইটিকে ক্রেডিট না দিয়ে তাদের ব্লগে বা অন্যান্য ব্লগে পোস্ট করে দেয় , মুক্ত আইটি এর কপিরাইট সংরক্ষিত তাই কপি করলে তা কপিরাইট আইনের আওতায় পড়ে । ধারা ৮২/৮৩ অনুযায়ী চার বছর কারাদন্ড ও ৩ লক্ষ্য টাকা জরিমানা

নিচের টিউটোরিয়াল গুলো লক্ষ্য করুন কাজে লাগতে পারেঃ
      আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । আমাদের ব্লগের সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন

      আমাদের ব্লগে নতুন কোনো পোস্ট আপডেট হলে সেটি আপনার ইমেইলের মাধ্যমে পেতে এখুনি সাবস্ক্রাইব করুন ।


      Mypayingads Bangla Tutorial । যারা ইনভেস্ট করে আয় করতে চান , তারা এই দিকে আসুন ।

      Mypayingads Bangla Tutorial । যারা ইনভেস্ট করে আয় করতে চান , তারা এই দিকে আসুন ।

      MYpayingads bangla Tutorial

      Hello ,সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো কিভাবে আপনি অনলাইনে টাকা ইনভেস্ট করে Mypayingads এর মাধ্যমে টাকা আয় করবেন ।   অনলাইনের মাধ্যমে আয়ের অনেক উপায় আছে যেমনঃ ফাইল আপলোড করে আয়  ,  এন্ড্রয়েড মোবাইলের মাধ্যমে এপ্স ইন্সটল করে আয় , PTC সাইটের মাধ্যমে আয় , লিংক শেয়ার করে আয়  ,  ব্লগে আরটিকেল লিখে আয়  ইত্যাদি উপায় রয়েছে সে যাই হোক ফ্রি মেথড গুলোতে বলা যায় সফলতার সম্ভাবনা ৫ % কিন্ত পেইড মেথডে সফলতার পরিমান ৮০-৯০% । বিশ্বাস করুন আমাকে মিথ্যা বলছিনা । আপনি দেখেন যারা অনলাইনে বলা চলে সফল তাদের ব্যাকগ্রাউন্ড কি ? তারা দিন-রাত এক করে পরিশ্রম করেছে , টাকা ইনভেস্ট করেছে তারপরে তাদের সফলতা এসেছে । তাই যারা বলেন কোনোমতে হাত খরচ যোগাড় করতে পারলেই হবে আমি বলবো অনলাইন থেকে আয় তাদের জন্য না । এখানে আপনি সময় দিতে হবে , তাহলে আপনি লাইফটাইম অনলাইন থেকে আয় করতে পারবেন ।

                         

      How to earn money by investing money Mypayingads bangla tutorial

      Mypayingads bangla tutorial mypayingads থেকে কিভাবে আয় করা যায়

      রেভেনিউ শেয়ারিং কি?

      রেভেনিউ শেয়ারিং সাইট হচ্ছে এমন একটি সাইট যারা কিনা আপনার থেকে টাকা নিয়ে ওইটা দিয়ে ব্যবসা করে আপনাকে ওই টাকা দিবে সাথে কিছু  % আপনাকে বোনাস দিবে ।

      ভুয়া নাকি বৈধঃ

      is it Scam or legit?  আমরা যে রেভেনিউ সাইট সম্পর্কে কথা বলতে যাচ্ছি তাহলো MYPayingAds (MPA ) । রেভেনিউ শেয়ারিং সাইটের মধ্যে এটি ১ নাম্বারে  অবস্থান করছে । যখনি অনলাইনে কোনো সাইটের মাধ্যমে আয়ের কথা আসে তখনি  এর সাথে আরেকটি কথা ও আসে যে এটি ভূয়া নাকি সত্যিকারের সাইট যা দিয়ে সত্যি আয় করা । Mypayingads এই পর্যন্ত ১ জন লোকের সাথে ও পোল্ট্রি বাজি করে নাই । এমনকি এটি যে ভূয়া কেউ এটার প্রমাণ দিতে পারবে না । মাঝখানে পেপালের সাথে MYpayingads  এর একটি ঝামেলা হইছিল যার কারণের ইউজারের ব্যালেন্স নিয়ে প্রব্লেম হইছিলো কিন্তু সমস্যা মিটে যাওয়ার পর তারা আবার ইউজারদের একাউন্টে ব্যালেন্স আগের মত করে দিয়েছে । এটি যে ট্রাস্টেড সাইট এটিও এর বড় প্রমাণ যদি ভূয়া হত তাহলে ওই ঝামেলার পর কম্পানি পালাতো আবার ইউজারদের ব্যালেন্স দিয়ে দিতনা ।

      পেমেন্ট প্রুফঃ

      mypayingads bangla tutorial payment proof

       Youtube Live hangouts  with Uday Nara (Founder)


      Mypayingads bangla tutorial 

      Mypayingads এর পটভূমিঃ

      Mypayingads এর মালিক Singapur প্রবাসী ভারতের তামিলনারুর অধিবাসী উদয় নারা একজন সৎ লোক তিনি। অত্যন্ত জ্ঞানী। ইন্টারনেট মার্কেটিংয়ে বিশাল দক্ষতা রয়েছে উনার। উনার সততার কারনে এই সাইট খুব দ্রুত সারা বিশ্বে সুনামের সাথে ছড়িয়ে পড়ছে। কিভাবে কাজ করবো? কত লাভ হবে? কয় দিন পর টাকা ফেরত পাবো? এটা কি বিশ্বাস্থ সাইট? কয় দিন থাকবে? কয়দিন পর স্ক্যাম করলে আমার ক্ষতি হবে করবো ইত্যাদি ইত্যাদি আমাদের মনে নানান প্রশ্ন জাগতেই পারে কিন্তু আমি এত কিছু ভাবি নাই। কাজ শুরু করে দিছি দেখি না কি হয়? আর সেটা থেকেই আজ এই অবস্থা আমার বুঝলেন। কাজ শুরু করেন বেশি ইনভেস্ট করার দরকার নেই অল্প অল্প করে করবেন। আবার ক্যাশ দেওয়ার মত টাকা হলেই ক্যাশ আউট দিয়ে দিবেন ব্যস। তবে আগে রেজিস্টার করতে হবে রেজিস্টার করতে কোন টাকা খরচ হয়না। তারপর আমি Step by Step সব কিছু দেখাবো। আমার রেফারে রেজিষ্টার করলে হেল্পটা অনেক বেশি পাবেন স্বাভাবিক ভাবে। আমি যথেষ্ট হেল্প করবো। সব ব্যাপারে।


      Mypayingads এ কিভাবে রেজিস্টার করবেন?

      এটি অনেক সহজ তেমন জঠিল কোনো কিছুই নেই । প্রথমে আমার দেওয়া লিংক এ ক্লিক করুন
      তারপরে নিচের মত একটি সাইন আপ ফরম আসবে । (আর অবশ্যই আপনারা আমার রেফার লিংকে ক্লিক করে সাইন আপ করবেন আমকে স্পন্সর করলে সুবিধা হবে কি আপনি আমার কাছে সব সময় সাপোর্ট পাবেন । তাই আমার রেফার লিংকের মাধ্যমে সাইন আপ করতে ভুলবেন না ।)

      Mypayingads bangla tutorial mypayingads থেকে কিভাবে আয় করা যায়


      উপরে sponsor:  Muktoit আছে কিনা দেখে নিন যদি না থাকে এই লিংকে যান  তারপরে আপনার নামের প্রথম অংশ , দ্বিতীয় অংশ , ইউজার নেম দিন , ইমেই ঠিকানা দিন ।
      পাসওয়ার্ড এক্টু কঠিন দিবেন যাতে কোনো হ্যাকার আপনার একাউন্ট হ্যাক করতে না পারে । তারপরে term Condition এর বক্সে টিক চিহ্ন দিন । তারপরে ক্যাপচা বসান ( ছবির লেখাটা বক্সে বসান ) । তারপরে আপনার ইনবক্স চেক করুন , আপনার ইনবক্সে একটি কনফারমেশান ইমেইল যাবে , এটি কনফার্ম করলেই আপনার আইদি এক্টিভ হয়ে যাবে ।


      Mypayingads এ আয় করার সিস্টেম কি?

      আপনি এই সাইটের মাধ্যমে ৩ ভাবে আয় করতে পারবেন

      1. Cash Link এর মাধ্যমে এড দেখে
      2. এড প্যাক কিনে ( ইনভেস্ট করে )
      3. রেফার লিংকে মাধ্যমে

      Mypayingads এ এড দেখে আয়ঃ

      আপনার একাউন্টে লগিন করার পরে বাম পাশে ২ নাম্বার লিংক্টাতে ক্লিক করুন অর্থাৎ Cash Links এ ক্লিক করুন ।তারপরে অনেক গুলো এড দেখতে পাবেন এই এড গুলো ঘন্টা পর পরি আসে । যাইহোক ওইখানে যাওয়ার পরে Click here to earn এ ক্লিক করুন । আপনি এই ট্যাব ছেড়ে কথাও যেতে পারবেন না , যদি যান এটি থেমে যাবে তাই আপনাকে ধৈর্য ধরে এই ট্যাবেই থাকতে হবে । তারপরে এড দেখা হয়ে গেলে GO Back Cash Link এ ক্লিক করুন ।


      Mypayingads এ এড প্যাক কিনেঃ

      আপনাকে এই পধ্যতিতে তেমন কিছুই করতে হবে নাহ । প্রথমে আপনি আপনার ড্যাশবোর্ড থেকে purchase এড এ ক্লিক করুন । তারপরে একটি ব্যানার সেট আপ করুন । ব্যানার সেট আপ করার পরে Buy Ad pack এ ক্লিক করুন । তারপরে দেখতে পাবেন Ad pack plan 1, 2, 3,4 এই ভাবে দেওয়া আছে আপনি ১ সিলেক্ট করুন কারণ আপনি যদি পরের গুলো ট্রাই করতে যান তাহলে আপনার মেম্বারশিপ আপগ্রেড করতে হবে । আপগ্রেড করলে আপনি অই অপশন গুলো ব্যবহার করতে পারবেন । তারপরে আপনি পেমেন্ট প্রসেসর সিলেক্ট করে Payza  সিলেক্ট করুন অথবা আপনার যেটা ভালো হয় সেটা ব্যবহার করুন । তারপরে আপনি কতটি এড কিনতে চান সেটি উল্লেখ করুন ।


      এখানে আরেকটি কথা হলো আপনি ফ্রি মেম্বারশিপে ১০০ টির বেশি এড প্যাক কিনতে পারবেন না । এবং প্রতিটি এড প্যাক  এর মেয়াদ কাল ২ মাস । এবং প্রতিটি এড প্যাক থেকে আপনি ০.১ ডলার পাবেন প্রতিদিন । চলুন অংক্টি দেখে নি ।

      ধরুন আপনি ১০০ টি এড কিনেছেন তাহলে মাসে আপনার আয় হবে

      0.1*100=10 Dollar
      10*30=300 Dollar
      300*78= 23400 Taka

      তাহলে দেখতে পাচ্ছেন আপনার আয় কত হচ্ছে ১০০ টি এড প্যাক কিনে ।যদি আপনার ৪০০ টি এড প্যাক থাকে তাহলে আপনার আয় ৯০ হাজার টাকার মত হবে ।


      Mypayingads এর রেফার লিংকঃ

      আপনার আয় এইখানেই থেমে থাকছে না , আপনি যদি কাউকে রেফার করতে পারেন তাহলে তার এড প্যাক কিনার অর্থের ১০ % আপনাকে দেওয়া হবে । তাই এইখানে প্রচুর আয়ের সুযোগ  রয়েছে ।
      যা আপনার কোনোভাবেই মিস করা উচিত নয় ।


      Website ক্রেডিটঃ

      আপনাকে ১ টি এড প্যাকের জন্য ১০০ ভিজিটর তাও আপনি যে দেশ চান সে দেশের ভিজিটর দেওয়া হবে তাহলে আপনি আয় করার পাশাপাশি আপনার ব্লগের ভিজিটর ও পেলেন । যদি আপনার ১০০ এড থাকে তাহলে আপনি প্রতি মাসে  ১০ হাজার কান্ট্রি টার্গেট ভিজিটর পাবেন । অন্য জায়গায় এত ভিজিটর পেতে আপনাকে অনেক টাকা খরচ করতে হত কিন্তু Mypayingsads থেকে আপনি তা ফ্রি পাচ্ছেন সাথে টাকা ও আয় করতে পারছেন , ধন্যবাদ 

      আপনাদের যাদের Mypayingads  এর টিউনটি বুঝতে সমস্যা হয়েছে অথবা আরো বিস্তারিত জানতে চান তারা দয়া করে ফেইসবুকে অথবা স্কাইপিতে ( Abdullah49704 ) যোগাযোগ করেন ।  আমি স্ক্রিন শেয়ার করে সব দেখিয়ে দিব ।

      Mypayingads bangla tutorial
      Mypayingads bangla tutorial
      Mypayingads bangla tutorial
      Mypayingads bangla tutorial 


      *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***

      নিচের টিউটোরিয়াল গুলো লক্ষ্য করুন কাজে লাগতে পারেঃ
          আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন

          আমাদের ব্লগে নতুন কোনো পোস্ট আপডেট হলে সেটি আপনার ইমেইলের মাধ্যমে পেতে এখুনি সাবস্ক্রাইব করুন ।






          আপনার ব্লগের ভিজিটর বাড়িয়ে আয় করুন আগের চেয়ে ১০ গুন বেশি ( সিক্রেট কৌশল এড করা হয়েছে )

          আপনার ব্লগের ভিজিটর বাড়িয়ে আয় করুন আগের চেয়ে ১০ গুন বেশি  ( সিক্রেট কৌশল এড করা হয়েছে )
          Hello Guys !!!!
          সবাই কেমন আছেন । আমি ভালো আছি । যা বলতে চাচ্ছিলাম ,  আমরা যারা ওয়েব সাইট তৈরি করেছি তারা মর্মে মর্মে বুঝতে পারছি ব্লগের ভিজিটর কত মূল্যবান । খুব কম মানুষই শখের বশে ব্লগ খুলে কিন্তু অধিকাংশই মানুষই ইনকামের জন্য ব্লগ খুলে কিন্তু ভিজিটর না থাকলে সে ব্লগের কী মূল্য আছে? সে ব্লগ দিয়ে কী ইনকাম করা সম্ভব আপনারাই বলুন । তাই আপনাদের কথা ভেবে একটা বই লিখেই ফেললাম যদি কোনো ভুল হয়ে থাকে আমাকে বলবেন


           কী কী থাকছে এই বইটিতে ?

          1. ট্রাফিক কী ? ট্রাপিক সম্পর্কে বর্ণনা ।
          2. ভিজিটর পাওয়ার পদ্ধতি সূমহ ।
          3. ব্লগের কন্টেন্ট রিচ করার পদ্ধতি ।
          4. ব্লগ ইডিটিং
          5. সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং ।
          6. ভিডিও মার্কেটিং
          7. সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং
          8. পেইড ট্রাপিক
          9. ট্রাফিক বিনিময়
          10. গেস্ট ব্লগিং
          11. বাংলাদেশের সেরা ব্লগ গুলোর তালিকা
          12. ইমেইল সাবস্ক্রিপশান
          13. ভিজিটর বাড়ানোর অন্যান্য গোপন ও কার্যকরী উপায় সূমহ

          সর্বোপরি বইটিতে এমন তথ্য শেয়ার করা হয়েছে যা পড়ার পরে আপনাকে আর ভিজিটর নিয়ে চিন্তা করতে হবে নাহ । আর ভিজিটর=টাকা এটা তো আর বলার অপেক্ষা রাখে নাহ । 

          mypayingads bangla tutorial

          বইটি এর বিশেষত্ব কী?

          আপনি আমাদের থেকে বইটি কিনলে আপনাকে আমাদের সাপোর্ট লিস্টের অন্তর্ভুক্ত করা হবে এতে আপনি অনলাইনে যেকোনো সমস্যায় পড়লে আপনাকে সাহায্য করা হবে ।

            আপনার ওয়েব সাইটের ভিজিটর বাড়িয়ে নিন আর আয় করুন ঘুমিয়ে ঘুমিয়ে
               
                       


                                              বইটির মূল্য ৫০ টাকা


             Download By MediaFire

            Download By Google drive

            Download by Dropbox

            পাসওয়ার্ড খুলবেন কিভাবে?

            • প্রথমে উপরে দেওয়া ডাউনলোড লিঙ্কে ক্লিক করুন , আপনার পছন্দ অনুযায়ী Mediafire,Google drive , Dropbox যেকোনো যায়গায় থেকে ডাউনলোড করতে পারবেন 
            • ফাইলটি ওপেন করার পর একটি পাসওয়ার্ড চাইবে সেটা আপনাকে দিতে হবে । পাসওয়ার্ডটি পাওয়ার জন্য আপনাকে মূল্য পরিশোধ করতে হবে ।
            • পেমেন্ট বিকাশে অথবা মোবাইল রিচার্জ এর মাধ্যমে করতে পারবেন । বিকাশঃ 01532403693 (Personal) অথবা রিচার্জ  01817233373 
            • পেমেন্ট করার পর আপনি আমার সাথে যোগাযোগ করুন । ফেইসবুক , স্কাইপিঃ Abdullah49704 ইমেইলঃ bdboyabdullah24@gmail.com মোবাইলঃ 01532403693
            • তারপর আপনাকে মেসেজ বা ইমেইল করে পাসওয়ার্ড জানিয়ে দেওয়া হবে 
            অনলাইনে আমরা সততার সাথে ব্যবসা করি , চিটারি-বাটপারি এর জন্য মুক্ত আইটি প্রতিষ্ঠিত হয়নি । আপনি নিঃসংকোচে আমাদেরকে পেমেন্ট করতে পারেন , তবে আমরাই বলবো আপনি সন্দেহ নিয়ে আমাদের সাথে লেনদেন করবেন না । মুক্ত আইটি এর মূল লক্ষ্য আমাদের দেশে লক্ষ্য লক্ষ্য অভিজ্ঞ তরুণ -তরুনী তৈরি করা যারা কিনা অনলাইনের মাধ্যমে নিজের ক্যারিয়ার গড়ে সর্বোপরি বাংলাদেশকে পৃথিবীর দরবারে একটি সমৃদ্ধ জাতি হিসেবে মাথা উঁচু করে দাড় করানো । ধন্যবাদ


            *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***

              আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন। সবার জন্য শুভ কামনা রইলো। আমার টিউন গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না। কারো কোনো সমস্যা হলে টিউমেন্ট এ জানান।আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো। ওয়েব ডিজাইন, এস ই ও,অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে  লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন 

            বাংলা ভাষায় টেক বিষয়ক আর্টিকেল লিখে আয় করুন আনলিমিটেড টাকা

            বাংলা ভাষায় টেক বিষয়ক আর্টিকেল লিখে আয় করুন আনলিমিটেড টাকা
            Hello ,সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো কিভাবে আপনার মুক্ত আইটিতে লেখালেখি করে আয় করবেন । আপনি চাইলেই মুক্ত আইটিতে বাংলা ভাষায় টেক বিষয়ক আর্টিকেল লিখে আয় করতে পারবেন ।  অফারটি সীমিত সময়ের জন্য তাই জলদি করুন  । দয়া করে পোস্ট টি  সম্পূর্ণ পড়বেন কারণ প্রত্যেক্টি কথা আপনার জন্য গুরুত্য পূর্ণ  অন্যথায় পেমেন্ট না পেলে মুক্ত আইটিকে গালি দেওয়া যাবে না ।

            বাংলা ভাষায় আর্টিকেল লিখে অনলাইনে আয়


            earn money by writting bangla Article Muktoit


            কত আয় করতে পারবেন?

            1. ০০ শব্দের ইউনিক আরটিকেলের জন্য আপনি পাবেন ১০ টাকা
            2.  ৫০০ শব্দের ইউনিক আরটিকেলের জন্য আপনি পাবেন ১৫ টাকা
            3. ১০০০ শব্দের ইউনিক আরটিকেলের জন্য আপনি পাবেন ৩০ টাকা
            4.  ১৫০০ শব্দের ইউনিক আরটিকেলের জন্য আপনি পাবেন ৩৫ টাকা
            5.  ২০০০+  শব্দের ইউনিক আরটিকেলের জন্য আপনি পাবেন ৪০-৬০ টাকা
            Tips : English ব্লগের পোস্ট গুলো নিজের মত করে সাজিয়ে পোস্ট করলে ইউনিক হয়ে যাবে মুক্ত আইটি এর প্রয়োজন ইউনিক পোস্ট 

            কিছু নীতিমালা যা আপনাকে মানতে হবেঃ

            ১ । আপনার ব্লগের বা অন্য ব্লগ থেকে টিউন কপি করে পোস্ট করা যাবে নাহ । যদি করে থাকেন প্রমানিত হলে আপনাকে ওই আরটিকেলের জন্য পেমেন্ট করা হবে নাহ ।

            ২। অন্যজনের পোস্টকে ইডিটিং করে বা মডিফাই করে পোস্ট করা যাবেনা ।
            ৩। আপনাকে অবশ্যই SEO ফ্রেন্ডলি আর্টিকেল লিখতে হবে । সেক্ষেত্রে এই আর্টিকেলটি আপনাকে সাহায্য করতে পারে।


            জেনে নিন ভালো মানের ও SEO Friendly আর্টিকেল লিখার অসাধারন সকল টিপস আর আপনার সাইটকে নিয়ে আসুন গুগলের প্রথম পেজে
            ৪। কাউকে উদ্দেশ্য করে বা অপমানজনক পোস্ট করা যাবেনা ।
            ৫। Sexual কোনো বিষয় নিয়ে আরটিকেল লিখা যাবেনা
            ৬। আপনার ওয়েব সাইট,ব্লগ বা পণ্যের সরাসরি বিজ্ঞাপন দেওয়া যাবে না ।
            ৭। কোনো রেফার লিঙ্কের এড দেওয়া যাবে না ।
            ৮। ফাইলের সরাসরি ডাউনলোড লিঙ্ক দিতে হবে ।

            ৯ । মুক্ত আইটিতে পোস্ট করার পর যখন গুগলে ইন্ডেক্স হয়ে যাবে তখন অন্যব্লগে এই টিউন পোস্ট করতে পারবেন তবে Source হিসেবে মুক্ত আইটি এর লিংক দিতে হবে

            ইন্ডেক্স হয়েছে কিনা তা বুঝতে হলে আপনার ব্লগার পোস্টে এ এসে টাইটেল কপি করে এর সাথে লিখুন Muktoit গুগলে মুক্ত আইটি এর আপনার কাঙ্ক্ষিত পোস্ট দেখলেই বুঝবেন মুক্ত আইটি এর পোস্ট টি গুগলে ইন্ডেক্স হয়েছে ।

            mypayingads bangla tutorial


            অর্থাৎ আপনি যদি সত্যি আয় করতে চান তাহলে আপনাকে এখানে আর্টিকেল নিজে লিখতে হবে এবং সকল নীতিমালা মানতে হবে অন্যথায় পেমেন্ট করা হবে নাহ । যারা আমাদের নীতিমালা মেনে লিখা লিখি করবে তারা পেমেন্ট পাবে ১০ কোটি % নিশ্চিত থাকেন ।


            লেখক হওয়ার জন্য আবেদন করুনঃ

            ফর্মটি লোড না হলে দয়া করে আবার রিলোড দিন





            কোনো সমস্যা হলে এই নাম্বারে জানান 01532403693 

            উপরিউক্ত ফর্মে আবেদন করার পরে আমাকে ফোন করে জানান , অথবা অপেক্ষা করুন আপনার জিমেইল  ইনবক্সে একটি Invitation Request যাবে ওইটি Incognito tab এ অপেন করুন এবং রিকুএস্ট এক্সেপ্ট করুন । লিঙ্কের উপরে কার্সর ধরে রাইট ক্লিক করলে incognito window একটি লিখা থাকবে ওইখানে ক্লিক করলেই হবে ।

            তারপরে blogger.com এ গিয়ে  আপনার জিমেইল দিয়ে সাইন ইন করলে মুক্ত আইটিকে দেখতে পাবেন । ওইখান থেকে মুক্ত আইটি সিলেক্ট করুন এবং নতুন পোস্ট করতে থাকুন ।



            পোস্ট করার পধ্যতিঃ

            1. প্রথমে মুক্ত আইটি এর ডান পাশে  সাইড বারে একটি সার্চ বক্স দেখতে পাবেন , এখানে আপনি যা লিখতে চান সেটা বাংলাতে এবং ইংরেজিতে ১ টা ওয়ার্ড লিখে সার্চ করুন যদি এই ধরনের টিউন থাকে আপনি এই ধরনের টিউন করবেন না । যেমনঃ আপনি পেজে নিয়ে পোস্ট করতে চান তাহলে আপনি সার্চ বক্সে লিখবেন "পেজা "  "পেইজা" "payza" যদি আপনি পেইজার কোনো পোস্ট পান যেটা আপনি করতে চাইছিলেন , ওইটা করবেন না ।
            2. টাইটেলের প্রথমে কি ওয়ার্ড দিয়ে আকর্ষণীয় টাইটেল দিন ।
            3. ডান পাশ থেকে লেভেল এ ক্লিক করে আপনি যে বিষয় নিয়ে লিখছেন সেটা কোন ক্যাটাগরিতে পড়ে সেটা দিন , আপনার কাঙ্ক্ষিত ক্যাটাগরি যদি না থাকে আমাকে ফোন দিন করে দিবো । তবে মাস্ট টেক বিষয়ের হতে হবে ।
            4.  permalink এ ক্লিক করে হাইপেন দিয়ে কিওয়ারড দিন যেমনঃ payza-account-bangla tutorial
            5. search description এ বাংলা ও ইংরেজী কি ওয়ার্ড দিয়ে সাজিয়ে সুন্দর একটি ডেস্ক্রিপশান দিন ।
            6. পোস্ট এ ইমেজ, ভিডিও ব্যবহার করুন
            7. পোস্ট এ  heading দিন , কি ওয়ার্ড গুলোকে কয়েকবার দিন এবং কিওয়ারড গুলোকে বোল্ড , আন্ডার লাইন, ইটালিক করুন ।
            8. ইমেজের উপরে ক্লিক করার পরে  property থেকে ইমজের অল্টার ট্যাগ দিন ।
            9. পোস্টের শেষে দেখতে পাবেন টাইটেল ১ , ২, ৩ ,৪ দেওয়া আছে এইগুলোতে আপনি যে বিভাগ থেকে পোস্ট করছেন সেগুলোর কয়েক্টা পোস্ট এড করুন ।
            10. মুক্ত আইটি এর অন্যান্য পোস্টের সাথে অন্ত লিংকি করুন ।
            11. আপনি আমার এই পোস্টের ফরমেট অনুসরণ করলে ও হবে ।
            পোস্ট লিখার সময়ে ডান সাইডবার আমি যে ফরমেটে রেখেছি সেভাবে রাখবেন 


            আপনি সব কিছুই আপনার পোস্ট অনুযায়িই দিবেন , জাস্ট এটি একটি ফরমেট ।

            পেমেন্ট পাবেন যেভাবেঃ

            প্রতিমাসের ১০ থেকে ১৫ তারিখে আপনি কতটি টিউন লিখেছেন ,কত শব্দের লিখেছেন তা হিসেব করে  এবং কপি কন্টেন্ট কিনা যাচাই করে আপনাকে বিকাশে পেমেন্ট করা হবে । ফর্মে অবশ্যই আপনার নাম্বার দিবেন যেটা দিয়ে আমরা আপনার সাথে যোগাযোগ করতে পারি । 



            *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***

            নিচের টিউটোরিয়াল গুলো লক্ষ্য করুন কাজে লাগতে পারেঃ
                আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন

                দেখে নিন কিভাবে আপনার ব্লগে পুশ নোটিফিকেশান এড করবেন ( সম্পূর্ণ )

                দেখে নিন কিভাবে আপনার ব্লগে পুশ নোটিফিকেশান এড করবেন ( সম্পূর্ণ )
                Hello ,সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো কিভাবে আপনার ব্লগে পুশ নোটিফিকেশান এড করবেন খুব সহজেই । পুশ নোটিফিকেশান কি? আপনি আপনার ব্লগে পুশ নোটিফিকেশান সেট করার পরে যখন কোনো নতুন ইউজার আপনার ব্লগে প্রবেশ করবে তখনি তাকে একটি এলারট দেখাবে যে অনুমতি দেওয়ার জন্য । সে যদি অনুমতি দেয় অর্থাৎ সাবস্ক্রাইব করে তাহলে আপনি যখনি তাকে পুশ নোটিফিকেশান পাঠাবেন তখন সে আপনার ওয়েব সাইটে থাকুক বা না থাকুক তার কাছে ডেক্সটপের কর্নারে বা মোবাইলের মাঝে একটি নোটিফিকেশান চলে যাবে । তারপরে সে ক্লিক করে আপনার ওয়েব সাইটে আসতে বাধ্য ।

                How to Add Push notification in Blog Bangla Tutorial


                How to Add Push notification in Blog Bangla Tutorial


                প্রয়োজনীয়তাঃ  

                এটির মাধ্যমে আপনি আপনার ব্লগে ভিজিটরকে ধরে রাখতে পারবেন । আপনি কোনো না কোনো ভাবে আপনি একটি ভিজিটরকে আপনার ব্লগে পাঠালেন তারপরে সে ভিবিন্ন কন্টেন্ট দেখলো ,দেখার পরে যে চলে গেলো হয়ত তার এই ওয়েব সাইটের কথা আর মনে ও নেই । আপনি চাইলে তাকে আবার আপনার ব্লগে আনতে পারেন পুশ নোটিফিকেশান এর মাধ্যমে । এতে আপনার ব্লগের জনপ্রিয়তা খুব দ্রুত বাড়তে থাকবে । গুগল মামা একটি গুরুত্বপূর্ণ ফ্যাক্টর অনুসরণ করে সেটি 

                হচ্ছে এভারেজ টাইম , এটি যে ব্লগের যত বেশি হবে সেই ব্লগের প্রায়োরিটি গুগলের কাছে তত বেশি কারণ গুগল ধরে নেয় যে এখানে এমন কোনো ভালো কন্টেন্ট আছে যার কারণে ইউজাররা অনেক সময় নিয়ে এই ব্লগে অবস্থান করছে আর যদি ভিজিটর আসে আর চলে যায় তাহলে যেমন বাউন্স রেট বাড়বে তেমনি এভারেজ টাইম ও কমে যাবে । তাই আপনি যাই করেন না কেনো আপনাকে সেই লেভেলের ভালো কনটেন্ট রাখতে হবে । যাইহোক , আপনি পুশ নোটিফিকেশান এর মাধ্যমে একজন ভিজিটরকে আপনার ব্লগে বার বার আনতে পারবেন এতে তার ব্লগটির কথা স্পষ্ট মনে 

                থাকবে তারপরে দেখবেন ২ দিন পর সে নিজেই ডিরেক্ট আপনার ব্লগ ভিজিট করতে হবে তবে এখানে একটি শর্ত আছে যে সে যদি ২ দিন পর এসে যে পোস্ট গুলো দেখলো ১ সপ্তাহ পরে এসে ও সেই পোস্ট গুলো দেখলো । তাহলে সে ধরে নিবে যে ব্লগের টিউনাররা ইনেক্টিভ এখানে কেউ পোস্ট করছে না । সো সে আর ব্লগটি ভিজিট করবে না , তাই আপনারা চেষ্টা করবেন সপ্তাহে কমপক্ষ্যে ৩ টি পোস্ট দিতে তবে কপি বাঝি 

                না যদি এই রকমটা করে থাকেন তাহলে আমার পোস্ট পড়া বন্ধ করুন ব্লগিং আপনার জন্য না । আরে ভাই , চাইলেই কিন্তু ব্লগার হওয়া যায় না ব্লগার হতে হলে আপনাক অনেক চেষ্টা করতে হবে অনেক পরিশ্রম করতে সফলতা এমনি এমনি আসে না এটি অর্জন করতে হয় । 


                Success Doesn't Come automatically , it has been gained 

                কিভাবে পুশ নোটিফিকেশান আপনার ব্লগে চালু করবেন?

                পুশ নোটিফিকেশান সিস্টেম চালু করার জন্য অনেক ওয়েব সাইট আছে তবে আমার মতে  PushAlive খুব ভালো হবে কারণ তারা আপনাকে ফ্রিতে ৫০০ সাবস্ক্রাইবার দিচ্ছে এবং তাদের ওয়েব সাইট খুব ইউজার ফ্রেন্ডলি ডিজাইন করা হয়েছে নতুনরা খুব সহজেই বুঝতে সক্ষ্যম হবে । প্রথমে এই লিংকে যান  যাওয়ার পরে নিচের মত Interface দেখতে পাবেন ।


                push notification Bangla tutorial


                Full Name      :    এখানে আপনার পুরা নাম দিবেন ।

                Email address:  এখানে আপনার ইমেইল ঠিকানা দিন ।

                Password       :  এখানে আপনার পাসওয়ার্ডটি দিন

                Confirm Password: আপনার পাসোওয়ার্ডটি পুনরায় দিন ।

                referal Code :  কিছু দেওয়া লাগবে না আপনি এটি খালি রাখুন ।

                http:// or https:// :   আপনার যেই প্রটোকল সেটি দিন তারপরে www. সহ ব্লগের ঠিকানা দিন যেমন মুক্ত আইটি এর ঠিকানা http://www.Muktoit.com

                Branded Sub domain: এখানে একটি দিলেই হবে তবে আপনার ব্র্যান্ডের নাম দেওয়া উচিৎ

                Captcha :  ইমেজের মধ্যে যা দেখতে পাচ্ছেন তা বক্সে বসান

                                                   তারপরে Register এ ক্লিক করুন 

                তারপরে Email Confirmation চাইলে Email কনফার্ম করে দিবেন ।

                mypayingads bangla tutorial
                কোড ইন্সটল করার পধ্যতিঃ

                তারপরে pushalive.com  এ গিয়ে লগিন করবেন । settings এ ক্লিক করুন installation থেকে নিচের মত একটি Script দেখতে পাবেন । এটি আপনার ব্লগের <head> এর পরে বসিয়ে দিন তবে খেয়াল রাখবেন এটি যেনো </head> এর বাহিরে না যায় এর ভিতরেই থাকতেই হবে ।

                push notification Bangla tutorial



                তারপরে সেটিংস থেকে আপনার সাইটের নাম দিন , লোগো এড করুন । এবং opt-in থেকে এড করুন যে আপনি পুশ নোটিফিকেশান এর সাবক্রিপ্সন চাওয়ার ডায়ালগটা কথায় দেখত চান । এড করা হলে ব্যাস আপনার কাজ শেষ সাবস্ক্রাইবার কালেক্ট করুন আর তাদের পুশ নোটিফিকেশান পাঠান ।

                কিভাবে পুশ নোটিফিকেশান পাঠাবেন?

                এটি খুবই সহজ পুশ এলাইভের ঢুকার পরে ড্যাশবোর্ড থেকে Send New Notification এ ক্লিক করুন ।

                push notification Bangla tutorial

                Campaign Name: আপনার যা ইচ্ছে দেন শুধুমাত্র ইন্টারনাল ব্যবহারের জন্য

                Title  :  আপনার টাইটেলটি দিন তবে হ্যা অনেক আকর্ষণীও ভাবে দিতে হবে যাতে সাবস্ক্রাইবার দেখে                ক্লিক করার ইচ্ছে হয় ।

                Messege : মেসেজ এ আপনার নোটিফিকেশান্টি সম্পর্কে ২-৩ কথা বলে দিবেন ।

                Target URL : এটির মাধ্যমে আপনি সাবস্ক্রাইবার কথায় নিতে চাচ্ছেন তার ইউ আর এল দিন ।

                বাকি ২ টা কিছুই করতে হবে নাহ  । এইবার তারা ক্লিক করে আপনার ব্লগে আসবে আর আপনি আরামসে লাভবান হউন । ধন্যবাদ


                *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***

                নিচের টিউটোরিয়াল গুলো লক্ষ্য করুন কাজে লাগতে পারেঃ
                    আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন

                    মাইক্রোসফট অফিস ২০১৬ ব্যবহার করুন একদম ফ্রিতে ( Full Activation Free )

                    মাইক্রোসফট অফিস ২০১৬ ব্যবহার করুন একদম ফ্রিতে ( Full Activation Free )
                    Hello ,সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো কিভাবে মাইক্রোসফট অফিস ২০১৬ একদম ফ্রিতে ব্যবহার করা যায়  ।  ব্যাপারটা অনেক সহজ কিন্তু সময় সাপেক্ষ্য ব্যাপার , তাই আপনার ধৈর্য জিনিসটা থাকতে হবে । এখানে আরেকটি কথা খুবই গুরুত্তপূর্ণ যে  আপনার নেট স্পিড বেশি হতে হবে । ডাউনলোড স্পিড কম হলে একতো দেরি হবে বা মাঝ পথে ফেইল্ড হয়ে গেলে রিজিউম সাপোর্ট না ও পেতে পারেন , হয়ত প্রথম থেকে ডাউনলোড শুরু হতে পারে । তাই নেট স্পিড ভালো হলে আপনার সুবিধা হবে ।

                    Microsoft Office crack Bangla Tutorial


                    Microsoft office 2016 Activation Bangla tutorial

                    প্রথমে আপনি এই সাইটে গিয়ে টোরেন্ট ডাউনলোড করুন । যদি আপনার থাকে তাহলে এই ধাপ স্কিপ করুন । 

                    এখন আপনি এই সাইটে গিয়ে মাইক্রোসফট অফিসের ক্র্যাক ফাইলটি ডাউনলোড করুন ।  ফাইলটি ডাউনলোড করতে Torrent Download এ ক্লিক করার পরে it torrent mirror এ ক্লিক করুন । টোরেন্ট ফাইলটি ডাউনলোড হয়ে গেলে এটিতে ডাবল ক্লিক করলে এটি ডাউনলোড হতে শুরু করবে । অনেকে সময় নিবে , ১ দিনে আপনি না পারলে আপনি পস করে রাখবেন পরে আবার স্টার্ট দিবেন ।


                    mypayingads bangla tutorial

                    তারপরে আপনি এটাকে আনজিপ করতে হবে । আনজিপ করার জন্য Winrar ব্যবহার করতে পারেন । আনজিপ করতে ফাইলের উপরে রাইট ক্লিক করে winrar সিলেক্ট করে Unzip here... এ ক্লিক করুন  আনজিপ হয়ে যাবে ।


                    তারপরে Microsoft office setup File  টি অপেন করে ইন্সটল করুন । অনেক সময় নিবে তাই ধৈর্য ধরে করুন । তারপরে আপনার এন্ট্রি ভাইরাসের প্রটেকশান অফ করে দিন । না হয় kms tools কে ম্যালোয়ার হিসেবে ধরবে , কিন্তু এটি কোনো ভাইরাস না ট্রাস্ট মি ।


                    তারপরে KMS auto Tools.exe এটি খুজে বের করুন  তারপরে রান করুন অতঃপর Active Office  এ ক্লিক করুন Active Windows  না । তারপরে অপেক্ষ্যা করুন নিচে সাক্সেস দেখালে বুঝে যাবেন আপনি সফল হয়েছে । ব্যাস মাইক্রোসফট অফিস ব্যবহার করুন চির জিবনের জন্য ফ্রি । 


                    *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***

                    নিচের টিউটোরিয়াল গুলো লক্ষ্য করুন কাজে লাগতে পারেঃ
                        আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন

                        এলোমেলো না পড়ে সঠিক ৭টি নিয়মে পড়াশোনা করুন সফলতা পাবেন নিশ্চিত

                        এলোমেলো না পড়ে সঠিক ৭টি নিয়মে পড়াশোনা করুন সফলতা পাবেন নিশ্চিত
                        Hello ,সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো সঠিক নিয়মে পড়াশোনা করার ৭টি টিপস নিয়ে রাতদিন বাবা মা বলেই যান, “বেশি করে পড়! রেজাল্ট ভাল হতে হবে এবার!” আমরাও ভাল রেজাল্টের জন্য অথবা ভাল প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হবার আশায় নাকমুখ গুঁজে ডুবে থাকি পড়ালেখায়। কিন্তু অনেকের ক্ষেত্রেই দেখা যায়, এত পরিশ্রমের পরও ফলাফল মনমতো হচ্ছে না। অথচ পাশের বাড়ির ছেলেটাই সারাদিন খেলাধুলা নিয়ে মেতে থাকার পরও পরীক্ষায় অনেক ভাল ফল করছে। এর কারণ কি শুধুই মেধার 

                        তারতম্য? কখনোই নয়! স্রষ্টা সবাইকেই সমান মেধা দিয়ে পাঠিয়েছেন, কিন্তু মেধার সঠিক ব্যবহারই ক্লাসের ফার্স্ট বয় আর লাস্ট বয়ের ব্যবধান তৈরী করে দেয়। সমাজে প্রচলিত ধারণা অনুযায়ী আমরা অনেকেই “স্টাডি হার্ড” অর্থাৎ “বেশি বেশি পড়লেই ফল ভাল হবে”- এমন ধারণা পোষণ করি, কিন্তু প্রকৃতপক্ষে “স্টাডি হার্ড” এর চেয়ে “স্টাডি স্মার্ট” বা “সঠিক নিয়মে পড়াশোনা” অনেক বেশি ফলপ্রসূ। দৈনন্দিন পড়াশোনার পদ্ধতিতে ছোট্ট ছোট্ট কিছু পরিবর্তন জাদুকরী এক ভূমিকা রাখবে তোমার পরীক্ষার রেজাল্ট ভাল করার পেছনে। চলো, ঝটপট দেখে নেওয়া যাক ৭টি “স্টাডি স্মার্ট” 

                        সঠিক নিয়মে পড়াশোনার ৭টি টিপস


                        সঠিক নিয়মে পড়াশোনার ৭টি টিপস


                        একনাগাড়ে বেশিক্ষণ পড়াশোনা নয় বিজ্ঞানীরা বলেন, মস্তিষ্কের তথ্য ধারণ ক্ষমতা টানা ২৫-৩০ মিনিট পরিশ্রমের পর হ্রাস পেতে শুরু করে। সুতরাং, একটানা ঘন্টার পর ঘন্টা বই নিয়ে পড়ে থাকার অভ্যাস বন্ধ করো।


                         পড়ার সময়টুকুকে ছোট্ট ছোট্ট ভাগে আলাদা করে সাজিয়ে নাও। প্রত্যেকটা ভাগ শেষ হওয়ার পর পাঁচ মিনিট ব্রেক নিবে। এই সময়টুকু একদম chill! তোমার যা করতে ভাল লাগে (কিছু খাওয়া, গান শোনা, ফেসবুকে একবার ঢুঁ মেরে আসা) এই সময়টুকুতে করবে, তারপর সতেজ মনে আবার পড়াশোনায় ঝাঁপিয়ে পড়বে। 

                        mypayingads bangla tutorial

                        মুখস্থ নয়, বুঝে পড়ো ছোটবেলা থেকে আমাদের ছড়া, কবিতা প্রভৃতি দাঁড়িকমা সহ মুখস্থ করে পরীক্ষার খাতায় লিখতে লিখতে অভ্যাস হয়ে দাঁড়ায় সবকিছু মুখস্থ করে ফেলার। এটি খুব ভুল একটি পদ্ধতি। অনেকেই আছে, যাদের কোন কিছুর সংজ্ঞা জিজ্ঞেস করলে হুবুহু বই এর সংজ্ঞা গড়গড় করে বলে দিতে পারবে, কিন্তু ব্যাখ্যা করতে বললেই নিশ্চুপ! Dont just study hard, study ‘smart’ বর্তমান সৃজনশীল পদ্ধতিতে পরীক্ষায় এই মুখস্থবিদ্যা নির্ভরতা তোমাকে একদমই সাহায্য করবে না ভালো ফল করতে। সুতরাং বই এর সংজ্ঞা মুখস্থ করা বন্ধ করে মূল টপিকটা বুঝতে চেষ্টা করো। কেননা, মুখস্থ দশবার করলে দশবার ভুলবে, কিন্তু একবার ভালভাবে বুঝে নিতে পারলে সেটা থেকে যাবে ।

                        *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***

                        নিচের টিউটোরিয়াল গুলো লক্ষ্য করুন কাজে লাগতে পারেঃ
                            আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন

                            Camtasia studio 9 Tutorial - ক্যামতাসিয়া ৯ খুব সহজে এক্টিভ করুন patch/crack [ Screen Recorder+Video Editor ]

                            Camtasia  studio 9 Tutorial - ক্যামতাসিয়া ৯ খুব সহজে এক্টিভ করুন patch/crack [ Screen Recorder+Video Editor ]
                            Hello ,সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো ক্যামতাসিয়া ৯ (Camtasia 9 ) কিভাবে এক্টিভ করা যায় কোনো রকম ঝামেলা ছাড়াই । আপনারা অনেকে জানেন আবার অনেকে জানেন না ,যারা জানেন না তাদের জন্য বলছি ক্যামতাসিয়া স্টুডিও একটি স্ক্রিন রেকর্ডিং সফটওয়্যার ( Screen recording Software ) । তাছাড়া আরেকটি কথা হলো এটি একটি পেইড সফটওয়্যার অর্থাৎ এপ্সটি ব্যবহার করতে হলে আপনাকে মূল্য পরিশোধ করতে হবে । তবে এটির ৩০ দিন আপনাকে ফ্রি ট্রায়াল দিবে , ট্রায়াল দিয়ে কি হবে ৩০ দিন পরে আপনি কি করবেন অথবা তারা আপনার ভিডিও তে তাদের
                            সফটওয়্যার এর ওয়াটার মার্ক দিয়ে দিবে । এটাতো নিশ্চয় আপনাদের ভালো লাগবে না ।

                            আরেকটি কথা হচ্ছে এটি শুধু স্ক্রিন রেকর্ডিং সফটওয়্যারই না এটি একটি ভিডিও এডিটিং সফটওয়্যার । আপনি এটি দিয়ে প্রফেশনাল ভিডিও এডিটিং করতে পারবেন এটা নিশ্চিত ।

                            Camtasia Studio 9 Full Activation Bangla tutorial 



                            Camtasia studio 9 full activation crack patch serial key bangla tutorial




                            আহ ! ইন্টারফেসটা কি সুন্দর ।

                            হ্যা এর ইন্টারফেসটা যেমন সুন্দর এর কৃতিত্ব ও তেমনি সুন্দর । অযথা বক বক না করে কাজের কথায় আসি আমি অনেক চেষ্টা করছি এটা ক্রেক করতে কিন্তু কোনো পারছিলাম না ক্রেক করতে শেষ পর্যন্ত ক্রেক তো করেছি এমনকি ২ ভাবে করে ট্রাই করেছি এই ২ টা ওয়ার্কিং ওয়ে আপনাদেরকে দেখাবো ।

                            মেথড ১ ।

                            Camtasia  studio full Activation By Using patch

                            এই পদ্ধতিতে আপনি খুব সহজে এক্টিব করতে পারবেন । শুধুমাত্র একটি এপ্স ব্যবহার করে ।
                            প্রথমে --> অফিসিয়াল ক্যামতাসিয়া ট্রায়াল ডাউনলোড করুন ।
                                                 Download official Camtasia Studio Setup


                            এখন এই আপ্সটি ডাউনলোড করেন

                                              Download   Camtasia 9 patch 


                            Crack : প্রথমে আপনি অফিসিয়াল ক্যামতাসিয়া অপেন করে , কেটে দিন । তারপরে ক্যামতাসিয়া ৯ প্যাচ অপেন করুণ তারপরে একদম উপরে দেখবেন patch লিখা আছে ওইখানে ক্লিক করুণ । ব্যাস কাজ হয়ে গেলো এইবার আপনি পিসি রিস্টার্ট করুণ। যদি কাজ না হয় তাহলে চলুন মেথড ২ এ ।


                            mypayingads bangla tutorial
                            মেথড ২ ।

                            Camtasia Studio Crack by serial key

                             এই পধতিতে আপনি ক্যামতাসিয়া অফিসিয়াল ট্রায়াল ডাউনলোড করুণ ।তারপরে ক্যামতাসিয়া অপেন করে ওইখানে একটি পপ আপ আসবে , সেখানে আপনি ৩০ দিনের জন্য ট্রায়াল সিলেক্ট করবেন  অর্থাৎ I want to evaluate camtasia studio তারপরে ক্যামতাসিয়া কেটে দিন । এই বার নেট এর কানেক্ট বন্ধ করে দিন অর্থাৎ ডিস্কানেক্ট করুণ ।  তারপরে আপনি Local Disc (c) তে যান ওইখানে একদম উপরে দেখবেন ভিউ লিখা আছে এটাতে ক্লিক করে ডানে File name extension এ টিক দিন   তারপরে  Hidden items  টিক  দিন ।

                            ক্যামতাসিয়া এক্টিভ করার উপায়
                            এইবার নিচের গেটওয়েতে যান ।
                             Local disc (c ) -->> Program Data-->>Tech smith --> Camtasia studio 9 --> Reginfo.ini
                            এইবার আমি আপ্নাকে টেক্সট ফাইল একটি দিব টেক্সট ফাইলের সকল লিখা কপি করে  Reginfo.ini এর ভিতর লিখা গুলোর সাথে রিপ্লেস করুণ অথবা আগের গুলো কেটে দিয়ে আমার টেক্সট ফাইল থেকে কপি করা লিখা গুলো এখানে পেস্ট করুণ । সেভ করুণ । এই বার আপনি windows Firewall এ গিয়ে ক্যামতাসিয়া স্টুডিও ব্লক করুণ ।

                                                    Download reginfo information



                            ব্লক করার সিস্টেম ঃ



                            এইবার start এ গিয়ে  উইন্ডোজ Firewall লিখে সার্চ করুন অথবা ডানে Setting এ গিয়ে Control panel->system and security-->Windows Firewall--> Advance setting-->inbound Rules--> New Rules-->program files--> Next

                            Camtasia serial key


                            এই বার Browse এ ক্লিক করে Camtasia studio 9 কে দেখিয়ে দিন । তারপরে Block all the conection তারপরে যেকোনো একটা নাম দিয়ে সেভ করে দিন । একই ভাবে Outbound Rules Add করবেন ।
                            আশা করছি আপনি সব ঠিক ঠাক মত করতে পেরেছেন কোনো রকম ঝামেলা ছাড়াই ।

                            *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***

                            নিচের টিউটোরিয়াল গুলো লক্ষ্য করুন কাজে লাগতে পারেঃ
                            আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন

                            HSC Exam Routine 2017 । এইচ এস সি পরীক্ষার রুটিন 2017

                            HSC Exam Routine 2017 । এইচ এস সি পরীক্ষার রুটিন 2017
                            Hello ,পরীক্ষার্থী ভাইয়েরা সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আশা করছি আপনাদের পরীক্ষার প্রস্তুতি অনেক  ভালো চলছে , আপনাদের সহায়তা করার জন্য আপনাদের মাঝে ২০১৭ সালের এইচ এস সি পরীক্ষার রুটিন শেয়ার করছি  ( HSC Exam Rotine 2017 )।  আশা করছি আপনাদের কাজে লাগবে ।

                            HSC Exam Rotine 2017



                            HSC Exam Rotine 2017

                            HSC Exam Rotine 2017

                            HSC Exam Rotine 2017


                                 একটি PDF ফাইলে ডাউনলোড করতে ক্লিক করুণ


                            mypayingads bangla tutorial

                            *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***

                                আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন

                                এইচএসসি ICT এর MCQ সাজেশান ইবুক ( PDF)

                                এইচএসসি  ICT এর MCQ সাজেশান ইবুক ( PDF)
                                Hello ,সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আজকে আপনাদের সাথে  একটি ইবুক শেয়ার করবো । ইবুকটি এইচএসসি ICT   এর MCQ এর উপর । এখানে গুরুত্বপূর্ণ সব এম সি কিউ দেওয়া হয়েছে  । এম সি কিউ যে গুলো প্রায় পরিক্ষায় আসে এই গুলো অনুশীলন করলে কমন পড়ার নিশ্চয়তা আছে । বুঝে বুঝে পড়লে ঘুরিয়ে আসলে ও পারা যায় । তাই তোমারা ইবুকটি পড় আশা করি কাজে লাগবে ।

                                HSC ICT MCQ Suggestion Ebook in PDF Format



                                hsc ict mcq suggestion ebook




                                ইবুকটি লিখেছেন ঢাকা BAF Shaheen College এর শিক্ষক 
                                Md. Shah Jamal ( Asst. Professor of Physics)


                                1.     HSC ICT MCQ Suggestion Ebook Chapter - 1
                                2.    HSC ICT MCQ Suggestion Ebook Chapter - 2
                                3.    HSC ICT MCQ Suggestion Ebook Chapter - 3
                                4.   HSC ICT MCQ Suggestion Ebook Chapter - 4
                                5.   HSC ICT MCQ Suggestion Ebook Chapter - 5
                                6.  HSC ICT MCQ Suggestion Ebook Chapter - 6
                                mypayingads bangla tutorial

                                *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***


                                নিচের টিউটোরিয়াল গুলো লক্ষ্য করুন কাজে লাগতে পারেঃ
                                      আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন

                                      Adf.ly তে লিঙ্ক শেয়ার করে আয় করুন অথবা কম খরছে বিজ্ঞাপন দিন ( ১ ডলার দিয়েই ১ হাজার টারগেটেড ভিজিটর)

                                      Adf.ly তে লিঙ্ক শেয়ার করে আয় করুন অথবা কম খরছে বিজ্ঞাপন দিন ( ১ ডলার দিয়েই ১ হাজার টারগেটেড ভিজিটর)
                                      Hello ,সবাই কেমন আছেন? আমি ভালো আছি । আশা করি আপনারা ও ভালো আছেন । আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করবো কিভাবে আপনারা Adf.ly তে লিঙ্ক শেয়ার করে আয় করবেন  এবং কিভাবে Adf.ly তে কম খরছে বিজ্ঞাপন দিবেন । চলুন দেখে নেওয়া যাক

                                      এডেফ্লি এক্টি  URL Shortening সার্ভিস । এটি এর যাত্রা শুরু করে ২০০৯ সাল থেকে এবং ক্রমে ক্রমে পপুলারে পরিণত হয়েছে । বর্তমানে লিঙ্ক শরটেনিং করার জন্য এডেফ্লি খুবই জনপ্রিয়  এডেফ্লি যেই সব কারণে জনপ্রিয়

                                      • সিপি এম ( CPM ) রেট বেশি 
                                      • দ্রুত পেমেন্ট
                                      • লো মিনিমাম পে আউট
                                      • ডেডিকেটেড সাপোর্ট
                                      • সরবোচ্ছ ফিল রেট
                                      • আকর্ষণীয় এফিলিয়েট প্রোগ্রাম

                                      লিঙ্ক শেয়ার করে আয় করুন / কম খরছে বিজ্ঞাপন দিন




                                      Adf.ly থেকে আয়ঃ

                                      আপনি আপনার কাঙ্ক্ষিত লিঙ্ক Adf.ly তে একাউন্ট খোলার পরে উপরে বক্সে বসান । তারপরে লিঙ্কটি শর্ট হয়ে গেলে এটি ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে শেয়ার করুণ ।

                                      সাইন আপ এবং অনুমোদনঃ

                                      এই সাইট থেকে যে কেউ আয় করতে পারবে যার শুধু  এক্টি ইমেইল এড্ড্রেস আছে এবং হাল্কা মার্কেটিং এর উপর ধারনা আছে সে ও এটি থেকে আয় করতে পারবেন ।আপনি লিঙ্ক শরট করে এবং ইনটারনেটে শেয়ার করে আয় শুরু করতে পারবেন । এটিতে কোনো অনুমদনের প্রয়োজন হয় না , একাউন্ট ইনস্ট্যান্ট এক্টিভ হয় ।

                                      মিনিমাম পে আউটঃ

                                      Adf.ly তে আপনি চাইলেই আপনার ডলার উঠাতে পারবেন না , আপনাকে কম্পক্ষ্যে ৫ ডলার আয় করতে হবে তাহলে আপনি পেপাল , পেজা, পেওনিয়ারের মাধ্যমে তুলতে পারবেন ।

                                      বাড়তি আয়ঃ

                                      আপনি Adf.ly এর রেফারেল প্রোগ্রামের মাধ্যমে আপনি বাড়তি আয় করতে পারবেন । আপনি যদি একজন পাবলিশারকে রেফার করতে পারেন তাহলে আপনি  তার আয়ের ২০ % পাবেন । আর আপনি যদি একজন এডভারটাইজারকে রেফার করেন তাহলে আপনি তার ব্যায়ের ৫ % পাবেন ।

                                      পপ এড ঃ

                                      Adf.ly নতুন সিস্টেমটি লাঞ্ছ করেছে । ওয়েব মাস্টাররা তাদের ওয়েব সাইটে পপ এড কোড বসিয়ে আয় করতে পারবে । কেউ যদি আপনার ওয়েব সাইটে প্রবেশ করে তাহলে আরেক্টি ট্যাবে তাদের বিজ্ঞাপন ওপেন হবে আপ্নার ভিজিটর আপ্নারই থাকলো পাশা পাশি আপনি আয় ও করতে পারলেন ।

                                      তাহলে পাব্লিশার হিসেবে এখনই জয়েন করুণ


                                      Adf.ly তে   কম খরছে বিজ্ঞাপন দিনঃ

                                      Adf.ly তে আপনি খুবই কম খরছে বিজ্ঞাপন দিতে পারবেন । এর মাধ্যমে আপনি মাত্র ১ ডলার খরছ করে আপনার ওয়েব সাইট বা ব্লগের জন্য ১ হাজার ভিজিটর নিতে পারেন  । এর আরেক্টি বড় সুবিধা হলো আপনি যে দেশকে টারগেট করবেন আপনি সেই দেশের ভিজিটর পাবেন , আপনি যদি বাংলাদেশকে টারগেট করেন তাহলে আপনি বাংলাদেশের ভিজিটর পাবেন । তাহলে আর দেরি কেনো 

                                      এখনই একজন বিজ্ঞাপনদাতা হিসেবে যোগ দিন


                                      এক নজরে দেখে নিন ঃ

                                      Type Service
                                      Commission type CPM,CPC , URL shortener and popads
                                      Minimum Payout 5$
                                      Payment Frequency Daily On demand
                                      Payment Method paypal,payoneer,payza
                                      Network Popularity High
                                      Adserving International
                                      Website URL http://Adf.ly



                                      *** টিউনটি পড়ে যদি মনে হয় আপনি উপকৃত হয়েছেন তাহলে আপনি এটি  ফেসবুক, গুগল প্লাস, টুইটারে   শেয়ার করতে ভুলবেন না  ***



                                      নিচের টিউটোরিয়াল গুলো লক্ষ্য করুন কাজে লাগতে পারেঃ
                                          আজ এই পর্যন্তই সবাই ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন । সবার জন্য শুভ কামনা রইলো । আমাদের পোস্ট গুলো দ্বারা যদি নূন্যতম ও উপকৃত হয়ে থাকেন তাহলে ফেসবুক,টুইটার,গুগল প্লাস এ আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না । কারো কোনো সমস্যা হলে কমেন্ট এ জানান। আমি সমাধান দেওয়ার চেষ্টা করবো । অনলাইনে আয় বিষয়ক সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের পেজে লাইকদিন। অথবা ফেসবুকে আমাকে জানাতে পারেন